আলমগীর-একরামুল-জাকির- রাকিব এবং আরো শতেক: A summary of State-Sponsored Killings in Bangladesh (Video)

মাদকবিরোধী অভিযানের নামে একের পরে এক মানুষকে বিনা বিচারে হত্যা করছে বাংলাদেশের আইন শৃংখলা বাহিনী। হত্যার আওতায় পড়ছেন শিশুশিল্পী রাকিব, বিএনপির কর্মী জাকির হোকেন, ছাত্রদল নেতা আলমগীর হোসেন বাদশা থেকে শুরু করে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের কর্মী একরামুল হক। অনেক ক্ষেত্রে নামের ভুলে মানুষকে হত্যা করা হচ্ছে, অনেক ক্ষেত্রে ব্যক্তিগত শত্রুতার জেরে বিপাকে ফেলা হচ্ছে, অনেক ক্ষেত্রে হত্যা করবার পরে কাহিনী সাজানো হচ্ছে। তবে যে যুক্তিই সরকারের পক্ষ থেকে দেয়া হোক না কেন, বিচার পাবার অধিকার এবং আইনের বাইরে বেখেয়ালে মারা না পড়ার অধিকার সব নাগরিকের থাকবার কথা, তারা যদি অপরাধী হয়েও থাকেন তার পরেও। একটি দেশে আইন-আদালত থাকবার পরেও যখন এভাবে একের পর এক মানুষকে গুলি করে হত্যা করে সেদেশের পুলিশ, তখন সেখানে আমরা চুপ করে থাকতে পারিনা। আইনশৃংখলা বাহিনীর এই সীমাহীন দৌরাত্ম্য যাকে কেউ লুকিয়ে ফেলতে না পারে এবং আমরা যাতে তার প্রতিরোধ করতে পারি–সেই লক্ষ্যে আমাদের কাজ করে যেতে হবে অবিরাম।
আপনাদের জানা শোনা কেউ এধরনের হত্যাকান্ডের শিকার এবং মামলা করতে বাধাগ্রস্থ হয়েছে কিনা সেটা এখানে লিখে তুলে ধরতে পারেন।পরাবর্তীতে আলোচনা করবো সেসব বিষয় নিয়ে। ধন্যবাদ।

Facebook Comments
Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *